সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৪৯ অপরাহ্ন

pic
নোটিশ :
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে!! জেলা উপজেলায় প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে বিস্তারিত জানতে : ০১৭১২-৬৪৫৭০৫
শিক্ষার্থীদের টিফিনের টাকায় এক দিনে লাখো গাছ রোপণ

শিক্ষার্থীদের টিফিনের টাকায় এক দিনে লাখো গাছ রোপণ

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ২৪ ডেস্কঃ   
জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাব মোকাবিলা করে বাসযোগ্য পৃথিবী গড়ার প্রত্যয়ে রাজশাহীর বাঘা ও চারঘাট উপজেলার শিক্ষার্থীরা নিজেদের এক দিনের টিফিনের টাকায় ১ লাখ ৫ হাজার গাছ রোপণ করেছে। ‘বিশ্ব ওজোন দিবস’ উপলক্ষে এ উদ্যোগ নেওয়া হয়।
আজ সোমবার সকাল সাড়ে নয়টায় চারঘাট পাইলট উচ্চবিদ্যালয় ও বাঘা মডেল উচ্চবিদ্যালয় মাঠে আলাদা দুটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থীরা একযোগে গাছগুলো রোপণ করে।
২০১৫ সাল থেকে বাঘার উদ্যমী তরুণ জুবায়ের আল মাহমুদ ‘এক দিনের টিফিনের পয়সা বাঁচিয়ে গাছ রোপণ’ আন্দোলন শুরু করেন। গত ১২ জানুয়ারি প্রথম আলোর ছুটির দিনে ক্রোড়পত্রে ‘
এক জুবায়ের লাখো গাছ
’ শিরোনামে প্রচ্ছদ প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। গত চার বছরে এই আন্দোলনে সারা দেশের ৭৫০টি স্কুলের লাখো শিক্ষার্থী অংশ নিয়েছে। এর মধ্যে রাজশাহীর বাঘা-চারঘাট, পাবনার ঈশ্বরদী, নাটোরের বড়াইগ্রাম, সিলেটের বিয়ানীবাজার এবং খুলনার দিঘলীয়া উপজেলার শিক্ষার্থীরা এই আন্দোলনে অংশ নিয়েছে। ২০১৫ থেকে ২০১৯—এই পাঁচ বছরে সাড়ে তিন লাখ গাছ রোপণ করা হয়েছে।
অনুষ্ঠানে জুবায়ের আল মাহমুদ জানান, আগামী ২ অক্টোবর পাবনার ঈশ্বরদী এবং নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার শিক্ষার্থীরা একযোগে আরও ১ লাখ গাছ রোপণ করবে। এ ছাড়া সিলেটের বিয়ানীবাজার ও খুলনার দিঘলীয়া উপজেলায় বৃক্ষরোপণ চলছে।
জুবায়ের বলেন, প্রতিবছর বিচ্ছিন্নভাবে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি হলেও এবারই প্রথমবারের মতো বিশ্ব ওজোন দিবস উপলক্ষে বাঘা-চারঘাটের শিক্ষার্থীরা একসঙ্গে এত গাছ রোপণ করল। অক্সিজেন উৎপাদনের জন্য শিক্ষার্থীদের এই লাখো গাছ রোপণের ঘটনা বিশ্বে বিরল। তিনি আরও বলেন, ‘আমি মনে করি, বাংলাদেশের পাঁচ কোটি শিক্ষার্থীকে নিয়ে যদি বছরের নির্দিষ্ট একটি দিনে বৃক্ষরোপণ করা যায়, তাহলে খুব সহজে বাংলাদেশ সবুজ হবে। এই আন্দোলন যদি জাতিসংঘের উদ্যোগে সারা পৃথিবীতে ছড়িয়ে দেওয়া যায়, তাহলে খুব সহজে সারা পৃথিবী বিশাল এক অরণ্যে পরিণত হবে।’ জাতীয়ভাবে বৃক্ষরোপণের জন্য ‘জাতীয় বৃক্ষরোপণ দিবস’ ঘোষণা করে বাংলাদেশের সব শিক্ষার্থীকে নিয়ে বৃক্ষরোপণের দাবিও জানান তিনি।
চারঘাটের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফখরুল ইসলাম। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন চারঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাজমুল হোসেন। বাঘার বৃক্ষরোপণ উৎসবে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাঘা উপজেলা চেয়ারম্যান লায়েব উদ্দিন। এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাঘা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিন রেজা।
চারঘাটে উপজেলা চেয়ারম্যান ফখরুল ইসলাম উপস্থিত শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, ‘তোমরা এমনভাবে গাছগুলোর যত্ন করবে যেন গাছগুলো তোমাদের সঙ্গেই বেড়ে ওঠে।’ বাঘার অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি উপজেলা চেয়ারম্যান লায়েব উদ্দিন শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, ‘তোমরা আজ পৃথিবীর বুকে ইতিহাস তৈরি করলে। প্রতিবছর একটি নির্দিষ্ট দিনে এই বৃক্ষরোপণ কার্যক্রম যেন অব্যাহত থাকে।’ অনুষ্ঠানের সভাপতি বাঘার ইউএনও শাহিন রেজা বলেন, ‘জুবায়েরের এই আন্দোলন অত্যন্ত যুগোপযোগী। শিক্ষার্থীরা যদি এভাবে প্রত্যেকে একটি গাছের দায়িত্ব নেয়, তাহলে গাছের প্রতি যেমন ভালোবাসা তৈরি হবে, তেমনি দেশের ২৫ ভাগ বনভূমি সংরক্ষণ ও সুনাগরিক হতেও সাহায্য করবে। আমরা এখনই যদি জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাব থেকে দেশকে বাঁচাতে এগিয়ে না আসি, তাহলে আমাদের সামনে ভয়াবহ পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে হবে।’

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 DakshinSunamganj24.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com