বৃহস্পতিবার, ১১ অগাস্ট ২০২২, ০৪:৫৯ পূর্বাহ্ন

pic
নোটিশ :
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে!! জেলা উপজেলায় প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে বিস্তারিত জানতে : ০১৭১২-৬৪৫৭০৫
দোয়ারাবাজারে আসামীদের বাড়ি-ঘর লুটের অভিযোগ

দোয়ারাবাজারে আসামীদের বাড়ি-ঘর লুটের অভিযোগ

সুনামগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি::
দোয়ারাবাজারে আসামীদের বাড়ি-ঘরে রাতের আধারে হামলা ও পুকুরের মাছ লুটপাটের অভিযোগ উঠেছে। গত ১১ মে শুক্রবার ও গত রবিবার ও সোমবার পৃথকভাবে এসব ঘটনা ঘটেছে উপজেলার সদর ইউনিয়নের টেবলাই গ্রামে। জানা যায়, টেবলাই গ্রামের বুরহান উদ্দিন হত্যা মামলা এজহারভুক্ত আসামীদের বাড়িঘর ও তাদের চাষকৃত পুকুরের মাছ রাতের আধারে লুট করে নিয়ে যায় মামলার বাদী রাজ্জাক মিয়ার লোকজন। এ ব্যাপারে ১৬ মে গ্রামের বাচ্চু মিয়া বাদি হয়ে দোয়ারাবাজার থানায় গ্রামের ৪৫ জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেছেন। মামলায় উল্লেখ করা হয়, একই গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক, আব্দুল কুদ্দুছ, আক্তার মিয়া, সুজন মিয়াসহ ২০/২৫ জনের একটি দল ১১ মে শুক্রবার গভীর রাতে ইউপি সদস্য মেরা মিয়ার বাড়িতে হামলা চালায়। হামলাকারী বাড়ির আসবাবপত্র টাকা-পয়সা ও মেয়েদের শরীর থেকে স্বর্ণালঙ্কার লুট করে নিয়ে যায়। একইভাবে গত রবিবার রাতে আনোয়ার মিয়ার বাড়ি থেকে ২৫ মণ ধান নিয়ে যায়। এসময় আনোয়ার মিয়ার স্ত্রী ও দুই মেয়ে পার্শবর্তী মঞ্জুর আলীর বাড়িতে আশ্রয় নেয়। পরে সেখানে গিয়ে অস্ত্রের মুখে দুই মেয়েকে ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা চালায়। এদিকে সোমবার দিনভর ইউপি সদস্য মেরা মিয়ার বাদাম ক্ষেত থেকে বাদাম তোলে নেয় হত্যা মামলার বাদী রাজ্জাক মিয়ার লোকজন। সোমবার বিকালে সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গেলে বিলাল মিয়ার মেয়েসহ কয়েক জনকে বাদাম তোলতে দেখা যায়।
জানা যায়, গত ২০ এপ্রিল টেবলাই বাজারের টোল আদায়কে কেন্দ্র করে একই গ্রামের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ হয়। এসময় উভয় পক্ষের প্রায় ২০জন আহত হয়। ঘটনার প্রায় ২০ দিন পরে বোরহান উদ্দিন নামের এক যুবক সিলেট এমএজি মেডিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়। এঘটনায় হত্যা মামলা দায়ের হয়। সাবেক ইউপি সদস্য সিরাজ মিয়ার স্ত্রী সকিনা বেগম বলেন,‘ আমাদের বাড়িতে কোন পুরুষ লোক না থাকায় যেসব অত্যাচার চালাচ্ছে তা ভাষায় প্রকাশ করা সম্ভব নয়। আমারা ঘরের ভেতরে দরজা বন্ধ করেও থাকতে পারছি না। আমাদের পুকুর থেকে প্রতিরাতেই লাখ টাকার মাছ তোলে নিয়ে বিক্রি করছে তারা। আমাদের মাছ বিক্রি করে বাড়ির পাশে এসে আনন্দ উল্লাসও করে তারা।’ তবে আসামী পক্ষের বাড়ি-ঘরে হামলা ও লুটপাটের অভিযোগ মিথ্যা দাবি করে অস্বীকার করেন হত্যা মামলার বাদী রাজ্জাক মিয়া। এ ব্যাপারে দোয়ারা থানার ওসি সুশীল রঞ্জন দাস বলেন, আসামীদের বাড়ি-ঘরে হামলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। পুলিশ প্রতি রাতেই টহল দিচ্ছে। গ্রামে কোন পুরুষ লোক না থাকায় মহিলারা কিছু ভয় পান। পুলিশের টহল আর জোরদার করা হবে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 DakshinSunamganj24.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com