রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ০৩:১৫ অপরাহ্ন

pic
সংবাদ শিরোনাম :
অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে আর্জেন্টিনা সুনামগঞ্জের শান্ত কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক মনোনীত প্রথম দল হিসেবে বিশ্বকাপের কোয়ার্টারে নেদারল্যান্ডস আর্জেন্টিনাকে হারানোর ৩২ বছর পর ক্যামেরুনের ব্রাজিলবধ ২-০ গোলে হারিয়েও ঘানার সঙ্গে বিদায় উরুগুয়ের পর্তুগালকে হারিয়ে রোনালদোদের সঙ্গে দ্বিতীয় রাউন্ডে কোরিয়া ব্রাজিল সাপোর্টারদের মোটরসাইকেল শোভাযাত্রা আর স্লোগানে স্লোগানে মুখরিত শান্তিগঞ্জ শান্তিগঞ্জে বাংলাদেশ এনজিও ফাউন্ডেশন দিবস উদযাপন ২৮ তম বিসিএস ফোরাম সিলেট’র সভাপতি ডাঃ জসিম, সম্পাদক সাগর কোস্টারিকাকে ৪-২ গোলে হারিয়েও বিদায় জার্মানির
নোটিশ :
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে!! জেলা উপজেলায় প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে বিস্তারিত জানতে : ০১৭১২-৬৪৫৭০৫
দক্ষিণ সুনামগঞ্জে বাল্যবিবাহ নিয়ে সমালোচনার ঝড়!

দক্ষিণ সুনামগঞ্জে বাল্যবিবাহ নিয়ে সমালোচনার ঝড়!

নিজস্ব প্রতিবেদক:
দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার পূর্বপাগলা ইউনিয়নের দামোধরতপী গ্রামে বিয়ের ৪ দিন পর ১২ বছরের এক নাবালিকা শিশুবধূকে ১৮ বছর বানিয়ে উৎকোচের মাধ্যমে জন্মনিবন্ধন নিলেন একই গ্রামের দুবাই প্রবাসী ৫০ উধর্ব বছর বয়সী বিয়ে পাগল বর মোঃ সাধু মিয়া। তিনি প্রশাসনের অগোচরে গত ৪ এপ্রিল অসহায় শিশুকন্যার পরিবারকে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে ম্যানেজ করেই বিয়ে কাজ সেরে নিয়েছেন বিয়ে পাগল সাদু মিয়া। ঐ আলোচিত বাল্য বিবাহের খবরটি বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রচারিত হওয়ার পর নড়েচড়ে বসেন সাধু মিয়া সহ তার আত্মীয় স্বজনরা। এ নিয়ে স্থানীয় হাটবাজারসহ গ্রামেগঞ্জে যখন আলোচনা আর সমালোচনার ঝড় উঠে! স্থানীয় ও দামোধরতপী গ্রামের একাধিক ব্যক্তি নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান ঐ সাধু মিয়া তার প্রতিপত্তির জোরে বাল্য বিবাহের রোষানল থেকে বাচঁতে গিয়ে তিনি গত ৮ এপ্রিল পূর্বপাগলা ইউনিয়ন পরিষদের ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মোঃ আজির উদ্দিনকে ম্যানেজ করে ১২ বছরের তার বিবাহিতা নাবালিকা শিশু ন্ত্রীকে ১৮ বছর বানিয়ে জন্ম নিবন্ধনের সার্টিফিকেট সংগ্রহ করেন তিনি। বাল্য বিবাহের জন্য সরকার কঠোর আইন প্রনয়ন করলেও আইনের প্রয়োগ সঠিক ভাবে হচ্ছে না। কিভাবে একজন বয়স্ক লোক হিসেবে সাধু মিয়া তার ঘরে প্রথম স্ত্রী ২ ছেলে ও ৪ মেয়ে নাতি নাতনী থাকার পর ও তিনি আবারো বাল্য বিবাহের সিড়িঁতে বসলেন। এ বিষয়ে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ ইখতিয়ার উদ্দিনকে ফোন করলে তিনি জানান বিষয়টি আমি জানিনা। তবে কেউ আমাকে ফোন করেছিলো এ বিষয়টি নিয়ে, আমি এখন দুজনকে দায়িত্ব দিয়েছি তা খোজ খবর নেবার জন্য। এদিকে ঐ বাল্য বিবাহটি নিয়ে যখন সমালোচনার ঝড় উঠে তখন ঐ বাল্য বিবাহকারী সাধু মিয়া দামোধরতপী পয়েন্টে গ্রামের কিছু নিরীহ সন্দেহভাজন লোকজনকে প্রকাশ্যে দিবালোকে গালি গালাজ করে বলেন সাংবাদিকরা শোনে এবং পত্রিকায় লিখে নাকি তার কিছুই করতে পারবে না। তার এমন অশালীন কথাবার্তায় গ্রামের অসহায় মানুষজন আতংঙ্কে আছেন। তিনি প্রকাশ্যে নতুন নাবালিকা শিশুটিকে বধু করে নিয়ে তার নিজ গ্রামে বসবাস করছেন। এদিকে মোবাইল ফোনে সাধু মিয়ার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, প্লিজ আমার নিউজটি করবেন না আমার লোকজন আপনাদের সাথে যোগাযোগ করবে বলে জানান। বাল্যবিবাহের কারণটি জানতে চাইলে তিনি মোবাইল ফোনের লাইনটি কেটে দেন। এ ব্যাপারে পূর্বপাগলা ইউপি ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মোঃ আজির উদ্দিন বলেন, সাধু মিয়া আমার নিকট হতে রিপা বেগম (অর্থাৎ) এর বড়বোনের কথা বলে জন্মনিবন্ধন নিয়ে এখন নাবালিকা শিশুকন্যা (নববধূ) রিপার নামে ব্যবহার করেছে বলে তিনি জানান। বিবাহিত শিশু কন্যাটির নাম রিপা বেগম (১২), সে দামোধরতপী গ্রামের মৃত কালা মিয়ার মেয়ে। এ ব্যাপারে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ হারুণ অর রশিদ জানান বিষয়টি আমি এই প্রথম শোনলাম, তবে জন্ম নিবন্ধনের বিষয়টিতে জালিয়াতি করা আইনগতভাবে দন্ডনীয় অপরাধ। তিনি খোজ নিয়ে দেখবেন বলেও জানান।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 DakshinSunamganj24.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com