বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ০৫:২৩ পূর্বাহ্ন

pic
নোটিশ :
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে!! জেলা উপজেলায় প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে বিস্তারিত জানতে : ০১৭১২-৬৪৫৭০৫
সেই পতাকার স্মৃতি খুব মনে পড়ে আর্জেন্টাইন ক্রুসিয়ানির

সেই পতাকার স্মৃতি খুব মনে পড়ে আর্জেন্টাইন ক্রুসিয়ানির

অনলাইন ডেস্ক::
এখনো সেই স্মৃতি ভুলতে পারেন না ডিয়েগো ক্রুসিয়ানি। বাংলাদেশে যে পরিমাণ আর্জেন্টাইন পতাকা দেখেছেন বিশ্বকাপের সময়, তেমনটি আর কোথাও দেখেননি। এক আর্জেন্টাইনের প্রশ্ন এটি। এক সময় বাংলাদেশে কাজ করেছেন। বিশ্বকাপের উন্মাদনা দেখেছেন খুব কাছে থেকে। অবাক হয়ে বাসা-বাড়ির ছাদে উড়তে দেখেছেন নিজ দেশসহ অন্যান্য দেশের জাতীয় পতাকা। অনুভব করেছেন তাঁর দেশের জন্য বাংলাদেশের মানুষের ভালোবাসা। বাংলাদেশ ছেড়েছেন বহুদিন হয়ে গেছে। বিশ্বকাপ এলেই তাঁর মনে পড়ে পুরোনো সেই দিনের কথা। ভালোবাসার জাদুমন্ত্রের প্রভাব যে এত সহজে ফুরিয়ে যাওয়ার নয়!
যে মানুষটির কথা বলা হচ্ছে, তাঁর নাম ডিয়েগো আন্দ্রেস ক্রুসিয়ানি। বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক কোচ। ২০০৫ সালে দায়িত্ব নিয়েছিলেন আলফাজ-হাসান আল মামুন-মতিউর মুন্নাদের। করাচিতে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে তুলেছিলেন বাংলাদেশকে। কিন্তু ২০০৬ সালে এএফসি চ্যালেঞ্জ কাপের ব্যর্থতার পরপরই বরখাস্ত হয়ে যান। ২০০৭ সালে অবশ্য আবাহনীর কোচের দায়িত্ব পালন করেছিলেন। কিন্তু এরপর আর বাংলাদেশে আসা হয়নি। ১১ বছর পরেও বাংলাদেশকে মনে রেখেছেন ক্রুসিয়ানি। নাহ্, নেতিবাচক কোনো কারণে নয়। এ দেশের মানুষ যে তাঁর দেশ আর্জেন্টিনাকে কত ভালোবাসে—এই ব্যাপারটাই কখনো ভুলতে পারেন না জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক এই কোচ।
২০০৬ সালের জার্মানি বিশ্বকাপের সময় অবাক হয়ে লক্ষ্য করলেন ঢাকার বাড়িঘরের ছাদে উড়ছে আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল, জার্মানি প্রভৃতি দেশের পতাকা। এর মধ্যে আর্জেন্টিনার পতাকার সংখ্যাই বিস্মিত করল তাঁকে—আকাশি নীল-সাদা রঙের এত পতাকা বোধ হয় বুয়েনেস এইরেসেও কখনো দেখেননি ক্রুসিয়ানি।

বাংলাদেশ থেকে ফেরার পর বিভিন্ন সময়ে তিনি কাজ করেছেন মালদ্বীপ, ক্যামেরুন ও চিলিতে। বর্তমানে আছেন নিজ দেশের একটি জুনিয়র দলের সঙ্গে। বিশ্বকাপে দুয়ারে। বন্ধু-বান্ধবদের সঙ্গে গল্পে-আড্ডায় প্রায়ই উঠে আসে বাংলাদেশ-প্রসঙ্গ, ‘আমি বাংলাদেশে এত আর্জেন্টিনার পতাকা দেখেছি, সেটা কখনোই ভুলতে পারি না। আমি আমার বন্ধু-বান্ধবদের প্রায়ই সেটা বলি। ওরা অবাক হয়। বিশ্বকাপ এলেই ব্যাপারটা মনে পড়ে বেশি। আচ্ছা, এবারও কী অনেক আর্জেন্টিনার পতাকা ওড়ানো হয়েছে?’ ডিয়েগো ম্যারাডোনার সাবেক স্ত্রী ক্লদিয়াকে খুব ভালো চেনেন ক্রুসিয়ানি। নিজের বাংলাদেশ-অভিজ্ঞতা একবার নাকি তাঁর কাছে বর্ণনা করেছিলেন। ক্লদিয়া তাঁর কাছ থেকে বাংলাদেশের একটি ছবিও চেয়ে নিয়েছিলেন। পরে সেটি নাকি ম্যারাডোনাকে দেখান। বাংলাদেশের বাড়ির ছাদে অজস্র আর্জেন্টাইন পতাকা অবাক করেছিল ফুটবল কিংবদন্তিকেও। আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়কও নাকি বলেছিলেন খোদ আর্জেন্টিনার মাটিতেও এত আর্জেন্টাইন পতাকা তিনি দেখেননি।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 DakshinSunamganj24.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com